শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ০৩:১৩ অপরাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি :
সুপ্রিয় পাঠক, শুভেচ্ছা নিবেন। সারাবিশ্বের সর্বশেষ সংবাদ পড়তে আমাদের ওয়েব সাইট নিয়মিত ভিজিট করুন এবং আমার ফেসবুক ফ্যান পেজে লাইক দিয়ে ফলো অপশনে সি-ফাষ্ট করে সঙ্গেই থাকুন। আপনার প্রতিষ্ঠানের প্রচারে স্বল্পমূল্যে বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন- aznewsroom24@gmail.com ধন্যবাদ।
সর্বশেষ :
সাড়ে ৪ ঘণ্টা আগে বিএনপির গণসমাবেশ শুরু ২৪ বছর পর থামলো ব্রাজিলের রেকর্ডযাত্রা ইতিহাস গড়া গোল করে কেন লাল কার্ড দেখলেন আবুবাকার? ‘দ্বিতীয়’ ব্রাজিল জিততে পারল না ব্রাজিলকে হারিয়েও হতাশায় পুড়ল ক্যামেরুন ‘ইপাসি’ দেওয়ালে প্রথমার্ধে দুঃস্বপ্ন ব্রাজিলের ঢাবিতে গাড়ির ধাক্কায় নারীর মৃত্যু নিরাপদ ক্যাম্পাস দাবিতে বিক্ষোভ রোনালদোদের হারিয়ে কোরিয়ার উৎসব চোখের জলে সুয়ারেজ-কাভানিদের বিদায় আইপিএলের নিলামে সাকিব-মোস্তাফিজসহ ৬ বাংলাদেশি রাজশাহীতে পৌঁছালেন মির্জা ফখরুল মিসেস এশিয়া বাংলাদেশের আয়োজকদের বিরুদ্ধে অর্থ নেওয়ার অভিযোগ প্রতিযোগী রাহা’র সুন্দরী প্রতিযোগিতার আয়োজকদের বিরুদ্ধে টাকা আত্মসাতের অভিযোগ আমাকে শারীরিক, মানসিক ও আর্থিক-সব দিকেই টর্চার করেছে: সারিকা প্রবাসীর স্ত্রীর কাছে চাঁদা দাবির অভিযোগ
রংপুরে ফের ২ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৯

রংপুরে ফের ২ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৯

অনলাইন ডেস্কঃ রংপুর বিভাগে করোনায় টানা তিন দিন পর ফের মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় বিভাগের আট জেলার মধ্যে শুধু রংপুরে দুজনের মৃত্যু হয়েছে। এ সময়ে বিভাগে ৯ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। শনাক্তের হার ২ দশমিক ৭৪ শতাংশ।

শনিবার দুপুরে রংপুর বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. মোতাহারুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় বিভাগে ১৯০ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এর মধ্যে ঠাকুরগাঁওয়ে তিনজন এবং দিনাজপুরে ছয়জন রয়েছেন। গত ২৪ ঘণ্টায় বিভাগে ২১ জন সুস্থ হয়েছেন।

এর আগের দিন শুক্রবার মৃত্যুহীন দিনে বিভাগে ১৮ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছিল। সেদিন বিভাগে শনাক্তের হার ছিল ২ দশমিক ৮৭ শতাংশ।

গত বছরের মার্চে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শুরুর পর থেকে এখন পর্যন্ত রংপুর বিভাগে করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১ হাজার ২৩৪ জন। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে দিনাজপুরে। এ জেলায় সর্বোচ্চ ৩২৫ জন মারা গেছেন।

দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২৯৩ জনের মৃত্যু হয়েছে বিভাগীয় জেলা রংপুরে। জেলা হিসেবে সবচেয়ে কম ৬৩ জন মারা গেছে গাইবান্ধায়। এ ছাড়া ঠাকুরগাঁওয়ে ২৫০ জন, নীলফামারীতে ৮৮ জন, পঞ্চগড়ে ৮০ জন, কুড়িগ্রামে ৬৮ জন ও লালমনিরহাটে ৬৭ জন মারা গেছেন। এখন পর্যন্ত বিভাগে মোট ২ লাখ ৮১ হাজার ৮৫৮ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এর মধ্যে ৫৪ হাজার ৯৫৪ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এখন পর্যন্ত বিভাগে সুস্থ হয়েছেন ৫১ হাজার ৮২৫ জন।

এদিকে রংপুর বিভাগে চলতি বছরের ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে ১ অক্টোবর পর্যন্ত ৫৫ লাখ ১০ হাজার ৭৮১ জনকে করোনার ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে।

রংপুর বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদফতরের পরিচালক মোতাহারুল ইসলাম বলেন, গণটিকাসহ বিভিন্ন বয়সী মানুষকে টিকার আওতায় আনার ফলে সংক্রমণ ও মৃত্যুর হার কমে আসছে। তবে যেভাবে স্বাস্থ্যবিধি উপেক্ষিত হচ্ছে তা উদ্বেগজনক। করোনা প্রতিরোধে জনগণকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। বাইরে বের হলে মাস্ক ব্যবহার করা জরুরি।

এজেড এন বিডি ২৪/হাসান

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *