রবিবার, ১৪ অগাস্ট ২০২২, ১০:৩৩ অপরাহ্ন

শিরোনাম:
সুপ্রিয় পাঠক, শুভেচ্ছা নিবেন। সারাবিশ্বের সর্বশেষ সংবাদ পড়তে আমাদের ওয়েব সাইট নিয়মিত ভিজিট করুন এবং আমার ফেসবুক ফ্যান পেজে লাইক দিয়ে ফলো অপশনে সি-ফাষ্ট করে সঙ্গেই থাকুন। আপনার প্রতিষ্ঠানের প্রচারে স্বল্পমূল্যে বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন- aznewsroom24@gmail.com ধন্যবাদ।
ছাত্রদলের দুই নেতাকে পিটিয়ে ড্রেনে ফেলল ছাত্রলীগ

ছাত্রদলের দুই নেতাকে পিটিয়ে ড্রেনে ফেলল ছাত্রলীগ

অনলাইন ডেস্কঃ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) এলাকায় ছাত্রলীগ ও ছাত্রদলের নেতাকর্মীদের মধ্যে থেমে থেমে সংঘর্ষ চলছে। সকালে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার এলাকা থেকে সংঘর্ষের সূত্রপাত হয়।

মঙ্গলবার (২৪ মে) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদুল্লাহ হলের গেটের পাশে ছাত্রদলের দুই নেতাকে মারধর করে ড্রেনে ফেলে দেন ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। ছাত্রলীগের শহীদুল্লাহ হলের কর্মীরা এতে অংশ নেন বলে ছাত্রদল নেতাকর্মীরা অভিযোগ করেছেন।

গুরুতর আহত হয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজের জরুরি বিভাগে চিকিৎসা নিচ্ছেন ওই দুই ছাত্রদল নেতা। তারা হলেন— বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক এজিএস ছাত্রদল নেতা আল আমিন বাবলু এবং ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সাবেক সহ-সভাপতি মিনহাজুল আবেদীন নান্নু।

সরেজমিনে দেখা যায়, ছাত্রদলের এই দুই নেতাকে ড্রেনে ফেলে বেধড়ক মারধর করছেন ছাত্রলীগের কয়েকজন কর্মী। এসময় তাদের বলতে শোনা যায়, এত বড় সাহস ছাত্রদল করিস। পরে ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক তুহিন রেজা, সূর্যসেন হল ছাত্রলীগের নেতা সৈয়দ শরিফুল আলম শফুর হস্তক্ষেপে ড্রেন থেকে তোলা হয় তাদের। তোলার পর আবারো কয়েক দফা মেরে রিকশায় তুলে দেওয়া হয়। রিকশায় উঠলে আবার লাথি মেরে ফেলে দেওয়া হয় মিনহাজুল আবেদীনকে। মারধরে তার পা ভেঙে যায়। পরে ছাত্রলীগের দুই কর্মী আবার তাকে রিকশায় তুলে দেন।

ছাত্রদল নেতা মিনহাজুল আবেদীন নান্নু বলেন, দোয়েল চত্বরে মিছিলসহ আসার পর শহীদুল্লাহ হলের ছাত্রলীগ কর্মীরা আমাকে টেনে হলের ভেতরে নিয়ে মারতে শুরু করে। লাঠি-হকিস্টিক দিয়ে মারার পাশাপাশি চাপাতি দিয়ে কোপও দেয় তারা। রিকশায় তুলে দিয়ে আবারও লাথি মেরে ফেলে দেয়। আমার পা পুরোপুরি ভেঙে গেছে। একা একা আমাকে মেডিকেলে পাঠানো হয়।

এজেড এন বিডি ২৪/ রামিম

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.




© 2021, All rights reserved aznewsbd24